জিপিএ-৫ প্রাপ্ত শিক্ষার্থীদের মহানগর শিবিরের সংবর্ধনা

তোমাদের মত স্বপ্নচারী প্রজন্মকে সৎ, দক্ষ ও দেশপ্রেমিক রূপে গড়ে তুলতে কার্যকরী পদক্ষেপ নিয়ে এগিয়ে যাচ্ছে ইসলামী ছাত্রশিবিরঃ হাফেজ রাশেদুল ইসলাম

“স্বপ্নের বাগিচা করতে সজল, পবন হয়ে দাও সততার দোল” এই স্লোগানকে সামনে রেখে সিলেটে এসএসসি/দাখিল পরীক্ষায় উত্তীর্ণ কৃতি শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা দিয়েছে বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্রশিবির সিলেট মহানগর শাখা।

শনিবার (৩ ডিসেম্বর) নগরীর এক মিলনায়তনে এই সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্রশিবির সিলেট মহানগর সেক্রেটারি সিদ্দিক আহমদের সভাপতিত্বে, নগর অফিস সম্পাদক আব্দুল হালিমের সঞ্চালনায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় সভাপতি হাফেজ রাশেদুল ইসলাম। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় মাদ্রাসা কার্যক্রম সম্পাদক সাইফুল ইসলাম, কেন্দ্রীয় মানবাধিকার বিষয়ক সম্পাদক সামিরুল ইসলাম, শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় সভাপতি রাহাত বিন সায়েফ চৌধুরী, সাবেক কেন্দ্রীয় সাংস্কৃতিক সম্পাদক ও মহানগর সভাপতি মামুন হুসাইনসহ মহানগরের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ।

প্রধান অতিথির হাফিজ রাশেদুল ইসলাম শিক্ষার্থীদের এই সফলতা অর্জন করায় শিক্ষার্থীদের অভিনন্দন জানিয়ে বলেন, তোমরা আজকে জীবনের আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ ধাপ সফলতার সাথে অতিক্রম করেছে। তোমরা আজকে প্রত্যাশিত ফল লাভ করে নিঃসন্দেহে নতুন ভুবন গড়ার প্রত্যয়ে বিভোর। তোমাদের ফলাফলে মা-বাবা, শিক্ষকদের সাথে ছাত্রশিবিরও আনন্দিত।আমাদের বিশ্বাস আগামীতেও এ সফলতা অব্যাহত থাকবে। তোমাদের এই অর্জনে জাতির প্রত্যাশার পরিধিও বেড়ে গেছে। তোমরাই আগামীর বাংলাদেশের নেতৃত্ব দিবে। তোমরা প্রাতিষ্ঠানিক পড়ালেখার ক্ষেত্রে যেভাবে কৃতিত্বের স্বাক্ষর রেখেছো, সাথে সাথে নৈতিকতার ক্ষেত্রে যদি কৃতিত্ব অর্জন করতে না পারো তাহলে এই মেধা দেশ ও জাতির কল্যাণে কাজে লাগানো যাবে না। মেধার মূল্যয়ন করতে হবে এবং এই মেধার মূল্যয়নের ধারায় এই দেশকে এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে। মেধা ও নৈতিকতার সমন্বয়ে ক্যারিয়ার গড়ে তোলে এদেশের পথহারা মানুষের পাশে তোমাদেরই দাঁড়াতে হবে।জঙ্গল এমনি এমনিই তৈরী হয় কিন্তু সুষ্ঠু পরিচর্যা ছাড়া বাগান তৈরী হয়না। বাংলাদেশ ইসলামি ছাত্রশিবির তোমাদের মেধা ও যোগ্যতার সমন্বয় ঘটিয়ে তেমনই একটি কুসুম কানন উপহার দিতে চায়। তোমাদের মত স্বপ্নচারী প্রজন্মকে সৎ, দক্ষ ও দেশপ্রেমিক রূপে গড়ে তুলতে কার্যকরী পদক্ষেপ নিয়ে এগিয়ে যাচ্ছে ইসলামী ছাত্রশিবির। ছাত্রশিবির তোমাদের সফলতার পথটি দেখিয়ে দিতে চায় এবং সেই সাথে তোমাদের সহযাত্রী হয়ে বাংলাদেশকে উন্নয়নের পথে এগিয়ে নিতে চায়।

বিশেষ অতিথিবৃন্দ বলেন, ছাত্রশিবির তরুণ মেধাবীদের মেধাকে দেশের জন্য বিনিয়োগ করতে শেখায়।মেধাবীদের সঠিক মূল্যায়ন কেবল মাত্র ছাত্রশিবিরই করে থাকে।ছাত্রশিবির বিশ্বাস করে মেধাবীদের দিয়েই সমৃদ্ধ দেশ গঠন সম্ভব। সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে সৎ, দক্ষ, দেশ প্রেমিক নাগরিক তৈরির অঙ্গীকার নিয়ে ছাত্র শিবির ময়দানে কাজ করে যাচ্ছে।

সভাপতির বক্তব্য নগর সেক্রেটারি সিদ্দিক আহমদ বলেন, দেশ ও জাতির চরম ক্রান্তিলগ্নে আজ সৎ ও দক্ষ নেতৃত্বের বড়ই অভাব, যার ফলে সর্বত্র বিরাজ করছে অশান্তি-অস্থিরতা, সংঘাত সংঘর্ষ। সেই সৎ ও দক্ষ নেতৃত্বের অভাব তোমাদেরকেই পূরণ করতে হবে।আজকের এই কৃতি শিক্ষার্থীরা সঠিক পরিচর্যার মাধ্যমে যোগ্য নাগরিক হিসেবে গড়ে উঠে আগামী দিনে বাংলাদেশকে নেতৃত্ব দেবে। দেশের সম্ভাবনাকে কাজে লাগিয়ে দুর্নীতিমুক্ত বাংলাদেশ গঠনে মেধাবীদের এগিয়ে আসার আহ্বান জানান তিনি।

Sharing is caring!

 

 

shares