হবিগঞ্জে দু’দফা সংঘর্ষে পুলিশসহ আহত ২৫ : আটক ১০

সিএনবাংলা ডেস্ক :: হবিগঞ্জে সাবেক ও বর্তমান দুই ইউপি চেয়ারম্যানের লোকদের মধ্যে দু’দফা রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ হয়েছে। এতে পুলিশসহ অন্ততঃ ২৫ জন আহত হয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করে। এ সময় ১০ দাঙ্গাবাজকে আটক করা হয়।

শুক্রবার (২৮ আগস্ট) দুপুরে সদর উপজেলার নিজামপুর ইউনিয়নের দরিয়াপুর গ্রামে এ সংঘর্ষ হয়।
পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, ওই গ্রামের বাসিন্দা বর্তমান ইউপি চেয়ারম্যান মো. তাজ উদ্দিন এবং সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান মো. আব্দুল আওয়ালের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে এলাকায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে বিরোধ চলে আসছে। এর জের ধরে গতকাল শুক্রবার জুমার নামাজের পূর্বে উভয়পক্ষের লোকজন দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করে। পরে জুমার নামাজের পর দু’পক্ষ পুনরায় সংঘর্ষে লিপ্ত হয়। খবর পেয়ে পুলিশ আবারও ঘটনাস্থলে ছুটে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এ সময় ১০ দাঙ্গাবাজকে আটক করা হয়েছে। সংঘর্ষে ৫ পুলিশসহ অন্ততঃ ২৫ জন আহত হয়। তারা সদর আধুনিক হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছেন।

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. মাসুক আলী জানান, দুই চেয়ারম্যানের বিরোধে সংঘর্ষ হয়েছে। বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত আছে। সংঘর্ষ নিয়ন্ত্রণে আনতে ইটপাটকেলের আঘাতে ৫ পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন। দাঙ্গাবাজদের ধরতে পুলিশের অভিযান অব্যাহত আছে।

সিএনবাংলা/একেজে

Sharing is caring!

 

 

shares