করোনা ভ্যাকসিন: সোমবার পরীক্ষার ফল প্রকাশ করবে অক্সফোর্ড

সিএনবাংলা ডেস্ক:: বর্তমানে বিশ্বব্যাপী তাণ্ডব চালাচ্ছে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস। এই ভাইরাসের ধ্বংসযজ্ঞে দিশেহারা হয়ে পড়েছে আধুনিক চিকিৎসাবিজ্ঞান। কেননা, এখনও পর্যন্ত এর সফল কোনও প্রতিষেধক আবিষ্কার করা সম্ভব হয়নি।

তবে এই ভাইরাসকে থামাতে নিরন্তর গুবেষণা চালিয়ে যাচ্ছেন বিশ্বের বিভিন্ন দেশের বিজ্ঞানীরা। অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন মানবদেহে প্রথম ধাপের পরীক্ষার ফল আগামীকাল সোমবার (২০ জুলাই) প্রকাশিত হবে। চিকিৎসাবিষয়ক আন্তর্জাতিক জার্নাল ল্যানসেটে তা প্রকাশিত হবে।

অক্সফোর্ডের ভ্যাকসিনটির এরই মধ্যে বড় আকারে মানবদেহে পরীক্ষার দ্বিতীয় ধাপ শুরু হয়েছে। এই ধাপে ভ্যাকসিনটি করোনার বিরুদ্ধে সুরক্ষা দেবে কিনা তা নিশ্চিত হবেন গবেষকরা। তবে উদ্ভাবকরা এখনও প্রথম ধাপের পরীক্ষার ফল প্রকাশ করেননি।

ল্যানসেট-এর এক নারী মুখপাত্র বলেন, আমরা আশা করছি চূড়ান্ত সম্পাদনা ও প্রস্তুতিতে থাকা প্রতিবেদনটি সোমবার প্রকাশিত হবে। এই প্রতিবেদনটি জরুরি ভিত্তিতে প্রকাশ করা হচ্ছে।

ভ্যাকসিনটির উদ্ভাবকরা এই মাসের শুরুতে জানিয়েছিলেন, মানবদেহে চালানো পরীক্ষার ফলাফলে তারা আশাবাদী। প্রথম ধাপের পরীক্ষার ফল জুলাই মাসের শেষের দিকে প্রকাশিত হবে। মানবদেহে পরীক্ষার পূর্বে শুকরের দেহে ভ্যাকসিনটি প্রয়োগ করা হয়। এতে দেখা গেছে, এক ডোজের চেয়ে দুই ডোজ প্রদান করলে অ্যান্টিবডির কার্যকারিতা বেশি পাওয়া যাচ্ছে।

এখন পর্যন্ত বিশ্বে তৈরি দুই শতাধিক ভ্যাকসিনের মধ্যে ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল চলছে ১৫টির। এর মধ্যে অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় ও ওষুধ উৎপাদনকারী অ্যাস্ট্রাজেনেকার পরীক্ষামূলক প্রকল্পটি প্রথম ভ্যাকসিন হিসেবে চূড়ান্ত ধাপে পৌঁছেছে। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাও বলছে, ভ্যাকসিন তৈরিতে তারাই সব থেকে এগিয়ে রয়েছে। অক্সফোর্ডের এই টিকা উদ্ভাবন প্রক্রিয়ায় সহযোগিতা করছে যুক্তরাজ্য সরকার ও ব্রিটিশ ফার্মাসিউটিক্যাল জায়ান্ট আস্ট্রাজেনেকা।

খবর রয়টার্সের।
সিএনবাংলা/একেজে

Sharing is caring!

 

 

shares