কালকিনিতে বিয়ের প্রলোভনে স্কুলছাত্রীকে ‘ধর্ষণ’

সিএনবাংলা ডেস্কঃ মাদারীপুরের কালকিনিতে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে দশম শ্রেণির এক স্কুলছাত্রীকে একাধিকবার ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। মঙ্গলবার দুপুরে ভুক্তভোগীর পরিবার মামলা করা জন্যে থানায় আসেন।

ভুক্তভোগীর পরিবার ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার রমজানপুর এলাকার দক্ষিণ রমজানপুর গ্রামের রমেশ মণ্ডলের ছেলে সুমন মণ্ডল এক স্কুলছাত্রীর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলেন। এরপর সুমন মণ্ডল তাকে বিয়ের প্রলোভন দিয়ে তার এক আত্মীয়ের বাড়িতে তিনদিন রেখে একাধিকবার ধর্ষণ করেন। একপর্যায়ে সুমন স্কুলছাত্রীকে একা ফেলে রেখে পালিয়ে যায়।
পরে স্কুলছাত্রী নিরুপায় হয়ে সুমনের বাড়িতে গিয়ে বিয়ের দাবিতে অবস্থান নেয়। কিন্তু তাকে সুমনের পরিবার মারধর করে বলে অভিযোগ উঠে। পরে খবর পেয়ে কালকিনি থানা পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। তবে ঘটনার পর থেকেই সুমন মণ্ডল পলাতক রয়েছে।
ভুক্তভোগী স্কুলছাত্রীর বাবা সাংবাদিকদের কাছে অভিযোগ করেন, আমার মেয়েকে সুমন বিয়ের কথা বলে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করেছে। আমি সুমনের বিচার চাই।
অভিযুক্তের বাবা রমেশ মণ্ডল বলেন, আমি কিছুই জানি না।
এ ব্যাপারে কালকিনি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. নাছিরউদ্দিন মৃধা বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। তবে ধর্ষণের ঘটনা গৌরনদী থানায়, তাই মামলা সেই থানায় দিতে হবে।
সিএনবাংলা/ এম

Sharing is caring!

 

 

shares