বিশ্বনাথে রিকশা চালকের লাশ উদ্ধার

নিজস্ব প্রতিবেদক :: সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলায় এক রিকশাচালকের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। তার নাম শফিক আলী (৩৪)। তিনি মানিকগঞ্জের সিংরাইল থানার পারিল নওয়াদা গ্রামের দুলাল মিয়া ওরফে সাহজাহান মিয়ার ছেলে।

শুক্রবার (২৮ আগস্ট) রাত ১০টায় উপজেলার রাজনগর দাসপাড়া এলাকা থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে পুুলিশ। এসময় নিজ রিকশার সাথে গলায় রশি বাঁধা অবস্থায় পড়ে ছিল শফিক আলীর মরদেহ।

মাথার পেছন দিকে গুরুতর জখম থেকে ঝরছিল রক্ত। তবে কে বা কারা, কেন এ ঘটনা ঘটিয়েছে-তা জানা যায়নি। এ ঘটনায় অজ্ঞাতদের আসামি করে শনিবার থানায় হত্যা মামলা (নম্বর-২১) করেছেন নিহতের ছোট ভাই রফিক আলী।

জানা গেছে, শফিক আলী দীর্ঘদিন থেকে উপজেলায় জানাইয়া রোডের মোস্তাব আলীর কলোনিতে স্ত্রী-সন্তান নিয়ে বসবাস করে আসছিলেন। নিজের ব্যাটারি চালিত রিকশা চালিয়ে পরিবারের ব্যয় নির্বাহ করতেন তিনি।
ঘটনার দিন সন্ধ্যা ৭টার দিকে রিকশা নিয়ে বের হন। রাত ৮টায় ছোটভাই লিটনকে ফোন করে কথা বলতে চান মায়ের সাথে। হঠাৎ রাত ১০টায় খবর আসে রাজনগর দাসপাড়া এলাকায় শফিক আলীর মরদেহ পড়ে আছে। পরে শফিক আলীর পরিবারের লোকজন ও থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে উদ্ধার করে তার রক্তাক্ত লাশ।

পরিবারের অভিযোগ, অজ্ঞাত খুনিরা তার মাথায় ভারী অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে গলায় রশি পেচিয়ে হত্যা করেছে।

এ বিষয়ে বিশ্বনাথ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) ডেইলি সিএন বাংলা কে বলেন, প্রাথমিকভাবে এটি ‘হত্যাকাণ্ড’ বলেই মনে হচ্ছে। লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্যে মর্গে পাঠানো হয়েছে। মামলার পরিপ্রেক্ষিতে ইতিমধ্যে তদন্ত কার্যক্রমও শুরু হয়েছে।

সিএনবাংলা/একেজে

Sharing is caring!

 

 

shares